চ্যাম্পিয়নস লীগে সেভিয়া ও নাপোলির জয়, পারেনি লিপজিগ

চ্যাম্পিয়নস লীগে সেভিয়া ও নাপোলির জয়, পারেনি লিপজিগ

চ্যাম্পিয়নস লীগে পুঁচকে দল বলে পরিচিতরাও আদতে পুঁচকে নয় কিন্তু মোটেও। নিজ নিজ দেশের লীগের শীর্ষ দলগুলোই আসে এখানে খেলতে। তাই তাদের ম্যাচগুলোও থাকে উত্তেজনায় ঠাসা আর চলে সুন্দর ফুটবলের প্রদর্শনী।

এই সপ্তাহে তুরষ্কের বেসিক্তাস মুখোমুখি হয়েছিলো জার্মান ক্লাব লিপজিগের সাথে। তবে প্রতিপক্ষের মাঠে পেরে উঠতে পারেনি লিপজিগ। ১১ মিনিটে বাবেল ও ৪৩ মিনিটে এন্ডারসন তালিস্কার গোলে ২-০ তে জিতে বেসিক্তাস। দুই ম্যাচে দুই জয়ে তারা গ্রুপের শীর্ষে।  একই গ্রুপে পর্তুগীজ পোর্তো মুখোমুখি হয়েছিলো ফরাসী চ্যাম্পিয়ন মোনাকোর। এ ম্যাচেও স্বাগতিক দলের জয়। ভিনসেন্ট আবুবকরের জোড়া গোল আর শেষ দিকে লায়ূন এর গোলে ৩-০ তে জেতে পোর্তো। এর ফলে আগের ম্যাচ হারা পোর্তো এখন গ্রুপ টেবিলের দ্বিতীয়তে। মোনাকো ও লিপজিগ আছে তাদের পর।

গ্রুপে আগের ম্যাচে শাখতারের সাথে হেরে গেলেও এবার নিজেদের মাঠে জিততে ভুল করেনি তারা। ডাচ ফেয়েনুর্দের সাথে তাদের জয়ের ব্যবধান ৩-১। গোল করেছেন ইন্সিগনে, মার্টেনস ও ক্যালেহন। মাচের শগেষদিকে এসে ফেয়েনুর্দের আমরাবাত ব্যবধান এক কমালেও হার এড়াতে পারেননি দলের। এ জয়ে নাপোলি শাখতারের সাথে দ্বিতীয় স্থান নিয়ে লড়াইয়ে ফিরলো, যদিও গোলগড়ে পিছিয়ে থাকায় তারা তৃতীয়। দুই জয়ে শীর্ষে ম্যান সিটি।

সেভিয়া মুখোমুখি হয়েছিলো দূর্বল মারিবরের। এবিং কোনো অঘটন না ঘটতে দিয়ে ৩-০ গোলের জয় তুলে নিতে ভুল করেনি তারা। হ্যাট্রিক করেছেন বেন ইয়েদ্দের। ২৭তম ও ৩৮তম মিনিটে দুই গোলের পাশাপাশি ৮৩তম মিনিটে পেনাল্টি থেকে হ্যাট্রিক পূরণ করেন তিনি। এক জয় ও এক ড্রয়ে সেভিয়া পয়েন্ট টেবিলে শীর্ষে। দুই ড্রয়ে দ্বিতীয়তে লিভারপুল। আর সমান পয়েন্ট ও গোলগড়ে তাদের সাথেই আছে স্পার্তাক।

নতুন আর্টিক্যাল পাবলিশড হওয়া মাত্রই পড়তে চান?

আজই সাবস্ক্রিপশন করে নিন