শুভ জন্মদিন এফসি বার্সেলোনা

শুভ জন্মদিন এফসি বার্সেলোনা

বার্সেলোনা,‘মোর দ্যান এ ক্লাব’ হ্যাঁ আজ এই ক্লাব টির জন্মদিন। ২৯ শে নভেম্বর, ১৮৯৯ আজ থেকে ১১৭ বছর আগে কিছু সুইস, ইংলিশ এবং কাতালান ফুটবলার জোয়ান গাম্পার নামক ব্যক্তির তত্ত্বাবধানে স্পেনের কাতালুনিয়ায় এফসি বার্সেলোনার জন্ম হয়যারা কাতালান সংস্কৃতির ধারক এবং বাহক।এরাই হলো একুশ শতাব্দীতে জেসব ক্লাব সবার উপর ছড়ি ঘুরিয়েছে তাদের মধ্যে অন্যতম হল এই কাতালান ক্লাবটি।

তৎকালীন স্বৈর শাসক ফ্র্যাঙ্কোর চোখ রাঙানী উপেক্ষা করেও মাঠের পারফর্মেন্স এ তারা সবার নজর ছিনিয়ে নিতে বাধ্য করে। রাজনৈতিক শত উপেক্ষাকে পাশ কাটিয়ে ক্লাবটি ১৯৩০, ১৯৩১, ১৯৩২, ১৯৩৪, ১৯৩৬ ও ১৯৩৮ সালে কাতালান কাপ জিতে। ১৯৩৬ সালে স্পেনে গৃহযুদ্ধ শুরু হওয়ার এক মাস পর বার্সেলোনা ও অ্যাথলেতিক বিলবাও-এর কয়েকজন খেলোয়াড়কে সামরিক অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করেছেন এমন ব্যক্তিদের সাথে তালিকাভুক্ত করা হয়। ৬ আগস্ট, ক্লাব প্রেসিডেন্ট ইয়োসেপ সানিওলকে হত্যা করে স্পেনের রাজনৈতিক দল ফালাঞ্জের সেনারা। ইয়োসেপ সানিওল ছিলেন কাতালানদের স্বাধীনতার স্বপক্ষে।

                                                                                                                                                                                     

বার্সেলোনা এখন পর্যন্ত উপহার দিয়েছে অনেক বিশ্বসেরা ফুটবলার। বিশ্বফুটবলের অন্যতম সেরা নক্ষত্র লিওনেল মেসির আবির্ভাব ঘটে কাতালান এই ক্লাব টির মাধ্যমেই। যে ক্লাবে খেলে গেছেন  ডাচ কিংবদন্তী জোহান ক্রুইফ, ব্রাজিল এর রোদানল্ডো, রোনালদিনহো, আর্জেন্টাইন গ্রেট ম্যারাডনা, স্পেনের জাভি, পুয়োলের মত সাবেকরা। বর্তমানে মাঠ মাতাচ্ছেন মেসি ইনিয়েস্তার মত সময়ের সেরা কিছু খেলোয়াড়। যারা ফুটবল কে নিয়ে গেছে এক অনন্য উচ্চতায়। তবে স্প্যানিশ প্লেয়ার লুইজ সুয়ারেজ এর নামটা একটু বেশী ই উচ্চারিত হবে, ১৯৬০ সালে বার্সার প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে তিনি ফুটবলের সবথেকে বড়  ব্যক্তিগত পুরস্কার ব্যালন ডি’অর জেতেন।

                                                                                                                                                        

তবে আধুনিক এই বার্সার কারিগর হলেন ডাচ কিংবদন্তী জোহান ক্রুইফ। যার হাতের ছোয়ায় বদলে গেছে বার্সার ফুটবলীয় চিন্তা ধারা। এরপর যার হাত ধরে বার্সা সাফল্যের সর্বচ্চো শিখরে পৌছায় তিনি হলেন সাবেক স্প্যানিশ ফুটবলার পেপ গারদিওয়ালা। তার হাত ধরেই ইতিহাসের একমাত্র দল হিসেবে হেক্সা জেতে বার্সা। অপ্রতিরোধ্য বার্সার জন্ম তার হাত ধরেই।

                                                                                                                                                          

বার্সেলোনা এখন পর্যন্ত ৫টি চ্যাম্পিয়ন্স লীগ, ২৪টি লঈগ শিরোপা এবং ২৯টি কোপা ডেল রের শিরোপা জেতে। শিরোপা দিয়ে বার্সার সাফল্য হয়তো মাপা যাবে না। তারা ফুটবলকে অনেক কিছু দিয়েছে। স্পেন এর ২০১০ এর বিশ্বকাপ জয়ের অন্যতম কারিগর এই বার্সেলোনা।

বার্সার সব থেকে বড় প্রতিদ্বন্ধি হল সময়ের অন্যতম সেরা ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ। এদের রাইভালিটি দুনিয়া সেরা। এদের মধ্যবর্তী লড়াইকে এল ক্লাসিকো নামে ব্যাখ্যা করা হয়।

আজ এই ক্লাবটির জন্মদিন।

শুভ জন্মদিন।

নতুন আর্টিক্যাল পাবলিশড হওয়া মাত্রই পড়তে চান?

আজই সাবস্ক্রিপশন করে নিন