কিংবদন্তীদের ফর্ম ফিরে পাবার বছরে উইম্বলডন

কিংবদন্তীদের ফর্ম ফিরে পাবার বছরে উইম্বলডন

টেনিস বিশ্বে এখন কাঁচা ঘাসের গন্ধ। কারনটা সহজ, আগামী ৩ জুলাই থেকে শুরু হচ্ছে বছরের তৃতীয় গ্র্যান্ড স্ল্যাম উইম্বলডন টেনিস টুর্নামেন্ট। ঘাসের গন্ধের সাথে ২০০৮ এর ঐতিহাসিক ফাইনালের মত পুরোনো স্মৃতিও ফিরে আসতে পারে এই স্মৃতিবহুল টুর্নামেন্টে। বছরটাও এমনি ইঙ্গিত দিচ্ছে।

শুরুটা হয়েছিলো তথাকথিত দুই বুড়িয়ে যাওয়া, ফুঁড়িয়ে যাওয়া টেনিস কিংবদন্তীর অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের ফাইনাল থেকে। ৫ সেটের হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে শেষ পর্যন্ত রাফায়েল নাদাল হার মানেন তার “আর্চ নেমেসিস” রজার ফেদেরারের কাছে। ফেদেরারের শানিত ব্যাকহ্যান্ড থেকে নাদালের অমানুষিক টপস্পিনের ফোরহ্যান্ড। কি ছিলোনা সেই ম্যাচে! ২০১৭ তে বসে অনেকেই ভেবেছেন হয়তো ২০১০ এ ফিরে গিয়েছেন। এরপরেও তারা মুখোমুখি হন ইন্ডিয়ান ওয়েলস এবং মায়ামি ওপেনে। সবাইকে চমকে দিয়ে ফেদেরার সহজেই জয় তুলে নেন দুটি মাস্টার্সেই।

এভাবেই গল্পটা চলতে পারতো কিন্তু সামনের পুরোটা ক্লে সিজন থেকেই ফেদেরার সরে আসেন, তখনো “কিং অফ ক্লে” খ্যাত রাফায়েল নাদালের গর্জন দেওয়াটা বাকি। পুরো মৌসুমটা সবাইকে দেখিয়ে দিলেন কেন তাকে ক্লে কোর্টের রাজা বলা হয়। একে একে জিতে নিলেন মন্টে কার্লো, বার্সেলোনা ও মাদ্রিদ ওপেনের শিরোপা। রোমে এসে হোচট খেলেন অস্ট্রিয়ান ডমিনিক থেইমের কাছে। নাদাল ফ্রেঞ্চ ওপেন জিততে পারবেন কি পারবেননা এমন সব বিতর্ক যখন শুরু হয়েছে, রীতিমত সব উড়িয়ে দিয়ে কোন সেট না হারিয়ে জিতে নিলেন রোলা গারো’র “লা দেসিমা”। নিজেকে নিয়ে গেলেন আরো উঁচুতে।

সবুজ ঘাসের সিজনের শুরুতেই নাদাল সরাসরি উইম্বলডনে খেলার ঘোষণা দেন অন্যদিকে রজার ফেদেরার খেলেছেন স্টুটগার্ট ওপেন এবং হ্যালি ওপেন। টমি হ্যাসের কাছে স্টুটগার্টে হেরে বিদায় নিলেও ঠিকই জিতে নিয়েছেন নিজের নবম হ্যালি ওপেন শিরপা।
 
ঘটনাবহুল এই বছরে নতুন মাত্রা যোগ করেছে গেলো তিন বছর টেনিস বিশ্ব শাসন করা মারে-জোকোভিচের অফ ফর্ম। মারে-জোকোভিচ যখন নিজেদের ফর্ম খোজায় ব্যাস্ত তখন ফেদেরার-নাদালের এই টেনিস বিশ্ব শাসনে নাদাল-ফেদেরার প্রেমীরা “ফেদাল” ময় এক উইম্বলডন আশা করতেই পারেন। আশা করতেই পারেন সেই চার ঘন্টা আটচল্লিশ মিনিটের ২০০৮ উইম্বলডন ফাইনালের মত অতিমানবীয় কিছু এই দুই অতিমানবের কাছে। উইম্বলডন ড্র অনুসারেও এই দুই কিংবদন্তীর ফাইনালের আগে মুখোমুখি হবার কোন সম্ভাবনা নেই।

মঞ্চ প্রস্তুত রয়েছে, সময়ই বলে দেবে ২০০৮ ফিরবে কি ফিরবে না। আপাতত সব চোখ ৩ জুলাই থেকে শুরু হতে যাওয়া উইম্বলডনের দিকে।

নতুন আর্টিক্যাল পাবলিশড হওয়া মাত্রই পড়তে চান?

আজই সাবস্ক্রিপশন করে নিন